Channel786 is a Community News Network

যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম মুসলিম শাসিত শহর মিশিগানের হ্যামট্রামিক

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ২২:৩১, ২৪ নভেম্বর ২০২১

আপডেট: ২২:৩৪, ২৪ নভেম্বর ২০২১

যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম মুসলিম শাসিত শহর মিশিগানের হ্যামট্রামিক

মিশিগান রাজ্যের সুপরিচিত শহর হ্যামট্রামিক। সম্প্রতি অনুষ্ঠিত নির্বাচনে শহরটির মেয়র ও কাউন্সিলম্যান হিসেবে যারা নির্বাচিত হয়েছেন তারা সবাই মুসলমান। এর মধ্যে দুজন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত। তাই শহরটিকে বলা হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম মুসলিম শাসিত শহর। 

শহরটির ৩০ হাজার বাসিন্দার অর্ধেকেরও বেশি অভিবাসী। যাদের বড় অংশই মুসলিম। এর প্রভাব পড়েছে স্থানীয় সরকার নির্বাচনেও। চলতি মাসের শুরুতে সিটি কাউন্সিল নির্বাচনে বিজয়ী সবাই মুসলমান। 

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে এর আগে কখনই এমনটা ঘটেনি। এই মাইলফলক উদযাপনের পাশাপাশি ইসলামবিদ্বেষীদের নানা প্রশ্নের মুখে পড়তে হচ্ছে নবনির্বাচিতদের। 

হ্যামট্রামিকের নবনির্বাচিত মেয়র আমির গালিব বলেন, মুসলিম সরকার হিসেবে আমরা উদাহরণ তৈরি করতে চাই। আমরা সবার প্রতিনিধিত্ব করবো। মুসলিম হিসেবে আমার বিশ্বাস অন্য কারো ওপর চাপিয়ে দিতে চাইবো না।

ধর্মান্তরিত মুসলিম ও কাউন্সিল ওম্যান অ্যামান্ডা জ্যাকোস্কি বলেন, আমাদের ব্যক্তিগত বিশ্বাসকে রাজনৈতিক জীবনের সাথে মেলাতে চাই না। শহরের ৫০ ভাগই মুসলিম, তবে সংখ্যালঘুরা যাতে বঞ্চিত মনে না করে, সেটাও খেয়াল রাখবো। 

কাউন্সিলম্যান খলিল রেফাই বলেন, এটা যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম শহর, যেখানে সব জনপ্রতিনিধি মুসলিম। তাই অনেকেরই নজর আছে এখানে। আমাদের প্রমাণ করতে হবে, মুসলিমরাও নেতৃত্ব দিতে পারে, পরিবর্তন আনতে পারে।

মেয়র ছাড়া হ্যামট্রামিক সিটি কাউন্সিলের সদস্য ৬ জন। এর মধ্যে দুজনই বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত। তাদের বিশ্বাস, অল্প সময়ের মধ্যেই হ্যামট্রামিকের মেয়র হবেন কোনো বাংলাদেশি।

যুক্তরাষ্ট্রের মোট জনসংখ্যার ১ শতাংশ, অর্থাৎ সাড়ে ৩৮ লাখ মানুষ মুসলিম। মার্কিন গবেষকদের ধারণা, ২০৫০ সালের মধ্যে এ সংখ্যা দ্বিগুণ হবে।


চ্যানেল ৭৮৬ এর নিউজ রুম এ যোগাযোগ করতে ই মেইল করুন এই ঠিকানায় [email protected]। আপনার পন্য বা সেবার প্রচারে বিজ্ঞাপন প্রচারের জন্য কল করুন +1 (718) 355-9232 এই নাম্বারে।

সংবাদটি শেয়ার করুনঃ